1. suhagranalive@gmail.com : admin :
July 30, 2021, 4:17 pm
শিরোনাম:
পিরোজপুরে চালু হলো বিনামূল্যে অক্সিজেন ব্যাংক করোনার লকডাউনে ভাল নেই ভাসমান সবজি হাটের ক্রেতা বিক্রেতা স্বাধীনতার সূর্য সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধার পরিবার থাকেন পলিথিনের ঝুপড়ি ঘরে! শেখ হাসিনা সেনানিবাসের জিওসি মেজর জেনারেল আবুল কালাম মো: জিয়াউর রহমান জেলার করোনা পরিস্থিতি ও লকডাউন কার্যক্রম বাস্তবায়ন পরিদর্শনে আজ পিরোজপুরে পিরোজপুরে সর্বোচ্চ সতর্কতায় চলছে তৃতীয় দিনের লকডাউন সরকারি খাদ্য সহায়তা সঠিকভাবে পৌঁছাতে কাজ করছে প্রশাসন ঢাবি’র কাছে শততম বছরে প্রত্যাশা ও প্রাপ্তি “বঙ্গবন্ধু-আওয়ামীলীগ-বাংলাদেশ”ইতিহাসে এই তিনটি নাম অমলিন অবিনশ্বর পিরোজপুরে প্রথম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন সম্পন্ন ভোটার উপস্থিত সন্তোষজনক ভোটাররা মানেনি সামাজিক দুরত্ব নুন্যতম বিশৃংখলা বা বাধাদান বরদাস্থ করা হবে না -পুলিশ সুপার পিরোজপুর  যমুনায় বঙ্গবন্ধু রেলওয়ে সেতুর নির্মাণসামগ্রী এখন মোংলায় খালাসের অপেক্ষায়

করোনার লকডাউনে ভাল নেই ভাসমান সবজি হাটের ক্রেতা বিক্রেতা

  • প্রকাশের সময় Tuesday, July 6, 2021
  • 93 জন দেখেছেন

স্টাফ রিপোর্টারঃ

পিরোজপুর জেলার নাজিরপুর উপজেলার বৈটাকাটা ইউনিয়নে বেলুয়া নদীতে নৌকায় বসে সবজি বেচাকেনার হাট। খুব সকালে শান্ত এই নদীতে নৌকা ও ট্রলার চলার ঢেউয়ের তালে তালে চলে নৌকায় সবজি কেনাবেচা। সপ্তাহে শনি ও মঙ্গলবার নৌকায় হরেক রকম শাক-সবজি কেনাবেচার এই দৃশ্য চোখে পরে। বৈঠাকাটা বাজার ঘেঁষা ভাসমান এই হাট স্থানীয়ভাবে ‘বৈঠাকাটা ভাসমান হাট’ নামে পরিচিত।

নাজিরপুর উপজেলা সদর থেকে ১৮ কিলোমিটার উত্তর-পূর্ব দিকে কলারদোনিয়া ইউনিয়নের বেলুয়া নদীর তীরে বৈঠাকাটা বাজার। বাজারের পূর্ব পাশে বেলুয়া মুগারঝোর গ্রামের বেলুয়া নদী। অর্ধশত বছরের বেশি সময় ধরে এ হাটে আশপাশের ২০ থেকে ২৫ গ্রামের কৃষকেরা তাঁদের উৎপাদিত সবজি বেচাকেনা করছেন। একসময়ে অনুন্নত সড়ক যোগাযোগব্যবস্থার কারণে স্থানীয় লোকজন নৌপথে চলাচল ও পণ্য পরিবহন করতেন। নৌকায় করে কৃষক হাটে কৃষিপণ্য নিয়ে যেতেন। আবার ক্রেতারা তা কিনে নৌকায় করে চলে যেতেন। নৌকায় বসে কেনাবেচা করতে করতে ভাসমান হাটের সূচনা।
বর্তমানের করোনার লকডাউনে ভাল নেই ক্রেতা বিক্রেতারা সবজির দামও বেড়েছে ক্রেতাও কমেছে। বাজারে ক্রেতা বিক্রেতার সাথে আলাপ করে জানা যায় বর্তমানের করোনার লকডাউনে আসে পাশের জেলাগুলো থেকে আগের মতো ক্রেতা বিক্রেতারা আসছেন না। বাজারে ঘুরে দেখা যায় ২০/২৫ টির মতো নৌকা এসেছে হাটে। করোনা মহামারির আগে এখানে গড়ে ১০০ মতো ছোট বড় নৌকা ট্রলার আসতো। কেউ কেউ সবজি কিনতে এসে দাম বেশি দেখে সবজি কিনছেন না। বেশির ভাগ ক্রেতা এখান থেকে সবজি কিনে আশেপাশের জেলায় নিয়ে বিক্রি করেন। অধিকাংশ ক্রেতা মনে করোনার এই পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে আস্তে আস্তে কমবে ক্রেতা বিক্রেতার সমাগম।

শেয়ার করুন

একই ধরনের খবর
ব্রেকিং নিউজ